Pages

আমার দুঃখ ভারাক্রান্ত বেশ্যাদের স্মৃতিকথা - গাব্রিয়েল গার্সিয়া মার্কেস অনুবাদ - রফিক-উম-মুনীর চৌধুরী

amarboi আমার দুঃখ ভারাক্রান্ত বেশ্যাদের স্মৃতিকথা - গাব্রিয়েল গার্সিয়া মার্কেস
অনুবাদ - রফিক-উম-মুনীর চৌধুরী
১৯৫০-এর দশকের কলম্বিয়ার বার্‌রানকিয়ার প্রেক্ষাপটে লেখা ১০৯ পৃষ্ঠায় আমার দুঃখভারাক্রান্ত বেশ্যাদের স্মৃতিকথা উপন্যাসের আখ্যানকারী ও মূল চরিত্র তাঁর সঙ্গে রাত কাটানো পাঁচশ জনেরও অধিক রমণীর প্রত্যেককে পয়সা দিয়ে ভাড়া করেছেন যদিও, কিন্তু উপন্যাসের বেশ্যাদের নিয়ে নয়। এর মূলে আছে প্রেম। কিপ্‌টে লোকটা জীবনের নব্বইতম জন্মদিনে হঠাৎ নিজেকে একটি অন্য রকমের রাত উপহার দিতে যাওয়ার বায়নায় তাঁর বহুদিনের পরিচিত কিন্তু অনেক বছর দেখা-সাক্ষাৎ নেই, এ রকম এ বেশ্যালয়ের সর্দারনির বহু আগে দেওয়া অসংলগ্ন প্রস্তাবের কথা ভেবে তাকে ফোন করে বলে, ‘আমার একটা কুমারী মেয়ে দরকার এবং সেটা আজ রাতেই।’ ব্যস! সবকিছু পাল্টে গেল। যে বয়সে বেশির ভাগ মানুষ আর দুনিয়ায় বেঁচে থাকে না, সেই বয়সে তাঁর জীবন এক নতুন মোড় নেয়। প্রেম।